বিশ্বের ৫০ প্রভাবশালীর তালিকায় ফেনীর মেয়ে সুমাইয়া


২৯ ফেব্রুয়ারী ২০১২) বিশ্বের ৫০ প্রভাবশালী উদ্যোক্তার তালিকাভুক্ত হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রে বড় হওয়া ফেনীর মেয়ে সুমাইয়া কাজী। বার্তা সংস্থা রয়টার্স এবং ক্লাউট প্রকাশিত ওয়েবসাইটে বিশ্বের সবচেয়ে প্রভাবশালী ৫০ উদ্যোক্তার নামের তালিকায় সুমাইয়া কাজীর স্থান ১৬ নম্বরে। পুরো নাম সুমাইয়া আন্দালিব কাজী। বাবা বীর মুক্তিযোদ্ধা ডক্টর কাজী গোলাম নিজামউদ্দিন, মা মেরিনা নিজাম এবং ভাই-বোনদের সঙ্গে তিনি যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার সানফ্রান্সিসকো বে-এলাকায় বসবাস করেন। সুমাইয়া কাজীর পৈত্রিক বাড়ি ফেনী জেলার মাথিয়ারা গ্রামে। তার দাদা মরহুম কাজী আলী নোয়াজ এবং নানা মরহুম চৌধুরী এ বি মজিদ। সুমাইয়া কাজী যুক্তরাষ্ট্রে লেখাপড়ার ফাঁকে সমাজসেবায় মনোনিবেশ করেন। তিনি সানমাইক্রোসিস্টেমে মার্কেটিং ম্যানেজারের কাজ নেন। পাশাপাশি ২০০৫ সালে তিনি প্রতিষ্ঠা করেন ‘কালচারাল কানেক্ট ডট কম’ (টিসিসিসি) নামে নিজের একটি প্রতিষ্ঠান। এতে তিনি সপ্তাহে প্রায় ৮০ থেকে ১০০ ঘণ্টা করে শ্রম দিয়ে আসছেন। ৩৫ বছরের কম বয়সী কর্মোদ্দীপক যুবক-যুবতীদের নিজস্ব সংস্কৃতির অবগাহনে উজ্জীবিত করতে টিসিসিসি বিশেষ ভূমিকা পালন করে। বর্তমানে সুমাইয়া কাজীর প্রতিষ্ঠান টিসিসিসি থেকে প্রকাশিত হচ্ছে পাঁচটি সাপ্তাহিক ই-ম্যাগজিন। ম্যাগাজিনগুলো হচ্ছে, ১. দ্যা দেশি কানেক্ট, ২. দ্যা মিডলইস্ট কানেক্ট, ৩. দ্যা এশিয়া কানেক্ট, ৪. দ্যা ল্যাটিন কানেক্ট, ৫. দ্যা আফ্রিকান কানেক্ট। বিশ্বের শতাধিক দেশে এসব ম্যাগাজিনের গ্রাহক সংখ্যা ৫০ হাজারের বেশী। ২০০৫ সালে মাত্র তিন জন স্টাফ নিয়ে যাত্রা করা এসব ম্যাগাজিনে বর্তমানে ৫০ জন কাজ করছেন। ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়ার বিরকেলি থেকে মার্কেটিং এবং স্ট্যাটেজিক প্লানিংয়ে উচ্চতর ডিগ্রিধারী সুমাইয়া কাজী বলেন, ম্যাগাজিনগুলো দ্রুত জনপ্রিয় হওয়ায় বর্তমানে দু’টি দেশের আট অঙ্গরাজ্যের ১৮ শহরে এর অফিস করতে হয়েছে। এখানে আমরা সবাই একটি টিমওয়ার্কের মাধ্যমে কাজ করছি। ২০০৬ সালে বিজনেস উইক ম্যাগাজিন কর্তৃক আমেরিকায় অনুর্ধ ২৫ বছর বয়েসী সেরা উদ্যোক্তার তালিকায় স্থান পান সুমাইয়া কাজী। ওই বছর সেই ম্যাগাজিনে প্রকাশিত বিশ্বের সেরা ৭৫ জন মহিলা উদ্যোক্তার একজন নির্বাচন হন সুমাইয়া। সর্বশেষ চলতি বছরের ১৪ ফেব্রুয়ারি রয়টার্স এবং ক্লাউট প্রকাশ করেছে ওয়েবসাইটে বিশ্বের সেরা প্রভাবশালী ৫০ কর্মকর্তা উদ্যোক্তার তালিকা, সেখানে ১৬ নম্বরে রয়েছেন সুমাইয়া কাজী। মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা এবং নোবেল বিজয়ী ড. মুহম্মদ ইউনূস তাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। অপরদিকে যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থিত প্রবাসীদের খুবই উৎফুল্ল করেছে এ খবর। তার ছবি সম্বলিত সংবাদ বিভিন্ন মিডিয়ায় গুরুত্বের সঙ্গে প্রকাশিত হচ্ছে। সুমাইয়ার বাবা ডক্টর কাজী গোলাম নিজাম উদ্দিন ক্যালিফোর্নিয়া থেকে টেলিফোনে বলেন, সুমাইয়ার এই অগ্রযাত্রায় আমরা অত্যন্ত গর্বিত। তিনি ফেনীসহ সমগ্র বাংলাদেশের মানুষের কাছে সুমাইয়ার জন্য দোয়া চেয়েছেন। আমেরিকা-বাংলাদেশ-কানাডা কনভেনশন (এবিসি কনভেনশন) কমিটির পক্ষ থেকে জুন মাসের শেষ সপ্তাহে সুমাইয়া কাজীকে বিশেষ সম্মান জানানো হবে। এদিকে, সুমাইয়া কাজীর পরিবারের পক্ষ থেকে তার বড় চাচা প্রবীণ কর আইনজীবী কাজী গোলাম মাইন উদ্দিন বলেন, সুমাইয়া কাজীর এই কৃতিত্ব অর্জনে তার পরিবারের লোকজন খুবই আনন্দিত এবং ফেনীবাসীও পুলকিত।

Read more